কুড়িগ্রাম

উলিপুরে ভিজিএফের অর্থ আত্মসাতের ঘটনায় ইউপি চেয়ারম্যান বরখাস্ত

উলিপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধিঃ
কুড়িগ্রামের উলিপুরে দুস্থ্যদের জন্য বরাদ্দকৃত ভিজিএফ এর অর্থ আত্মসাতের ঘটনায় গুনাইগাছ ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ খোকাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। গত রবিবার (৮আগস্ট)স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রনালয়ের উপসচিব মোঃ আবুজাফর রিপন স্বাক্ষরিত একটিপত্রে এ প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি।
জানা গেছে, ২০২০-২১ অর্থ বছরে গত মে মাসে পবিত্র ঈদুল ফিতর উপলক্ষ্যে গুনাইগাছ ইউনিয়ন পরিষদে ৬ হাজার ১’শ ৭৮ জন হতদরিদ্র পরিবারের মাঝে ২৭ লাখ ৮০ হাজার ১’শ টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়। ওই মাসের ১৩ তারিখ (বুধবার) দুপুর পর্যন্ত ৩হাজার ১’শ ৫০ পরিবারকে ভিজিএফের ৪৫০ টাকা করে ১৪ লাখ ১৭ হাজার ৫’শ টাকা বিতরণ করেন ইউপি চেয়ারম্যান। পরে বাকী ৩ হাজার ২৮ পরিবারের ১৩ লাখ ৬২ হাজার ৬’শ টাকা বিতরণ না করে অসৎ উদ্দেশ্যে চেয়ারম্যান তার ব্যক্তিগত ব্যাংক হিসাব নম্বরে গচ্ছিত রাখেন। আকস্মিক বিতরণ বন্ধ করায় বঞ্চিতরা ইউনিয়ন পরিষদের সামনে প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ করেন। খবর পেয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার নূর-এ-জান্নাত রুমি, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা গোলাম হোসেন মন্টু ও থানার অফিসার ইনচার্জ ইমতিয়াজ কবির পরিষদ কার্যালয়ে উপস্থিত হন। প্রাথমিক তদন্তে কর্মকর্তাগণ বিভিন্ন কাগজপত্র গড়মিল দেখতে পেলে, তাৎক্ষনিক ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ খোকাকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ। পরে তার বিরুদ্ধে সরকারী অর্থ তছরুপের ঘটনায় মামলা দায়েরের পর কুড়িগ্রাম জেল-হাজতে প্রেরণ করা হয়। এ ঘটনার ২ মাস ২৫ দিন পর গত বুধবার (৮ আগস্ট) স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রণালয়ের উপসচিব মোঃ আবুজাফর রিপন স্বাক্ষরিত একটিপত্রে তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়।
এ ব্যাপারে গুনাইগাছ ইউপি চেয়ারম্যান আবুল কালাম আজাদ খোকা বলেন, বিষয়টি আমি শুনেছি, তবে অফিসিয়ালী এখনও কোন পত্র হাতে পাইনি। চিঠিটা হাতে পেলে, অফিসিয়ালী জবাব দেবেন বলেও জানান তিনি।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button