কুড়িগ্রাম

কুড়িগ্রামের নাগেশ্বরীতে চিঠি লিখে দরজায় টাকা রাখলো কে?

কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ কুড়িগ্রাম নাগেশ্বরী উপজেলায় চিরকুট লিখে রাতের আধারে ঘরের দরজায় টাকা রেখে গেছেন অজানা ব্যক্তি। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার রাতে পৌরসভার সুখাতী ভাটিয়াটারী গ্রামে। এই ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে।

ওই গ্রামের আমিনুর রহমানের ছেলে হাসানুর রহমান বলেন, রাতের খাওয়া শেষে সাড়ে ৮ টায় ঘরের দরজা লাগিয়ে সবাই শুয়ে পড়েন। তখনও কেউ ঘুমায়নি। ঘরের আলো নিভানো হয়নি। রাত প্রায় ৯ টার দিকে হঠাৎ কোন মানুষের পায়ের শব্দ শুনে তিনি দরজা খুলে বের হই। দেখেন কেউ একজন তার বাড়ি থেকে দ্রুত বেরিয়ে যাচ্ছেন। পিছু পিছু গিয়েও দেখা পাওয়া যায়নি। ফিরে এসে দরজা বন্ধ করতেই চোখে  পড়ে ১০০ টাকার একটি নোট। টাকায় স্টাপলাইজার লাগানো একটি চিঠি।

সেখানে লেখা “এই টাকাটা ক্ষতি করেছি নিয়ে মাফ করে দেবেন”। পরে শুনতে পান একইভাবে একই এলাকার আবু বকরের ছেলে আব্দুল বারেকের ঘরের দরজায় ১০টাকা, ইসমাইলের ছেলে আব্দুস সাত্তারের ঘরের দরজায় ৫০টাকা, মৃত শমসের আলীর ছেলে সাইদুরের ঘরের দরজায় ৩০টাকা, ছফর আলীর ছেলে মজনু মিয়ার ঘরের দরজায় ১০০টাকা রেখে গেছে অজানা কেউ।মুহুর্তেই ঘটনাটি এলাকায় ছড়িয়ে পরে। উৎসুক জনতা দেখতে ভীর জমায় সেখানে। বিষয়টি জল্পনা-কল্পনার ডালপালা মেলে চিন্তায় ফেলে ওই পরিবারের লোকজনের মাঝে।

এটি নিছক রসিকতা না অন্য কিছু এ নিয়ে বিস্তর আলোচনা চলছে এলাকায়।পৌরসভার ৫ নং ওয়ার্ড কমিশনার রুহুল আমিন জানান, আমার নির্বাচনী এলাকায় এমন ঘটনার বিষয়টি আমার কানেও এসেছে। কে, কেন এ কাজটি করেছে তা আমার বোধগম্য নয়।এই বিষয়ে নাগেশ্বরী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা নবিউল হাসান বলেন,এমন ঘটনা জানা নেই।  বিষয়টি আমরা খোঁজ খবর নিচ্ছি।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button