কুড়িগ্রাম

কুড়িগ্রামে চরে গিয়ে করোনার টিকা দিচ্ছে স্বাস্থ্যবিভাগ

কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামে দুর্গম চরাঞ্চলে এবার করোনার টিকা প্রদান কার্যক্রম শুরু করেছে স্বাস্থ্যবিভাগ। চরে চরে গিয়ে করোনার টিকা দিচ্ছেন স্বাস্থ্যকর্মী ও স্বেচ্ছাসেবকরা। এই ব্যাতিক্রমী উদ্যোগের ফলে টিকা নিতে পেরে খুশি চরবাসী।

সোমবার ইউনিসেফ ও জেলা তথ্য অফিসের সহায়তায় সদর উপজেলার চর সারডোব সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে এক হাজারেও বেশি মানুষ এই টিকা গ্রহন করেন। এসময় জেলা তথ্য অফিসের উপ পরিচালক নুরুন্নবী খন্দকার, সদর উপজেলা স্বাস্থ্য পরিবার পরিকল্পনা অফিসের সহকারী সার্জন ডা. আতিকুর রহমান, স্বাস্থ্যকর্মী, রেডক্রিসেন্ট সদস্য ও স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠ সারডোবের আলোর সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন। 

এ আগে জেলা তথ্য অফিসের উদ্যোগে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের উদ্যোগে সদর ও রাজারহাট উপজেলার সারডোব, আলোর চর, শিতাইঝাড় ও জয়কুমরসহ কয়েকটি চরের প্রায় তিন হাজারেও বেশি মানুষকে বিনামূল্যে করোনা ভাইরাসের টিকার নিবন্ধন করা হয়।

রাজারহাটের অনার্স ক্লাব, দিশারী পাঠাগার ও সারডোবের আলোসহ স্থানীয় সংগঠনের স্বেচ্ছাসেবীরা এই নিবন্ধন কার্যক্রমে সহায়তা করে।  জেলা করোনা প্রতিরোধ কমিটির সদস্য ও জেলা তথ্য অফিসের উপ পরিচালক নুরুন্নবী খন্দকার জানান,  চরাঞ্চলের অনেকেই টিকা নিতে আগ্রহী থাকলেও দুর্গম এলাকা থেকে যাতায়াতে সময় ও অর্থ ব্যয় হওয়ায় টিকা কার্যক্রমের বাইরে থেকে যাচ্ছিলেন তারা।

তাদেরকে সরকারের চলমান টিকা কার্যক্রমের আওতায় আনার লক্ষ্যে স্বেচ্ছাশ্রমের ভিত্তিতে নিবন্ধন কার্যক্রম পরিচালনার পর স্বাস্থ্যবিভাগের উদ্যোগে টিকা প্রদান করা হচ্ছে। 

কুড়িগ্রাম সদর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নজরুল ইসলাম জানিয়েছেন, পযার্য়ক্রমে আরো কয়েকটি চরে এই টিকাদান কার্যক্রম অব্যাহত রাখা হবে। কুড়িগ্রামের জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রেজাউল করিম জানান, কুড়িগ্রামের বিপুল সংখ্যক মানুষ চরে বাস করে। তারা যেন টিকার বাইরে না থাকেন, সেজন্য চরে চরে গিয়ে টিকাদানের বিশেষ উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। 

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button