জাতীয়

কোভিড মহামারি: করোনাভাইরাসে বাংলাদেশে মৃত্যুর নতুন রেকর্ড, মারা গেছেন ১৫৩ জন

তারার আলো ডেস্কঃ বাংলাদেশে স্বাস্থ্য বিভাগ জানিয়েছে যে দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় ১৫৩ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন। কোভিডে আক্রান্ত হয়ে দৈনিক মৃত্যুর হিসেবে এটিই সর্বোচ্চ রেকর্ড।

অন্যদিকে, নতুন করে ৮ হাজার ৬৬১ জন কোভিড রোগী শনাক্ত হয়েছেন। আক্রান্তের হার ২৮.৯৯ শতাংশ।

গত সোমবার কোভিডে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর সংখ্যা ছিল ১৪৩ জন, যেটি ছিল আজকের আগ পর্যন্ত একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যুর রেকর্ড।

এ নিয়ে আজকে পর্যন্ত করোনাভাইরাসে পরপর সাত দিন একশো’র বেশি মৃত্যুর ঘটনা ঘটলো।

সরকারের স্বাস্থ্য অধিদপ্তর নিয়মিত সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানিয়েছে, গত ২৪ ঘণ্টায় যারা মারা গেছেন, তাদের মধ্যে সবচেয়ে বেশি মানুষ মারা গেছেন খুলনায়, ৫১ জন। এরপরই ঢাকায় ৪৬, রাজশাহীতে ১২ এবং চট্টগ্রামে ১৫ জন মারা গেছেন।

এর আগের দিনেও সবচেয়ে বেশি মানুষ মারা গিয়েছিল খুলনায়।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আরও জানানো হয়েছে, গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৩০ হাজার ১২ জনের। শনাক্তের হার বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২৮.২৭ শতাংশ।

আগের দিন ৩০ হাজার ১২ জনের নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছিল। নমুনা বিবেচনায় শনাক্তের হার ছিল ২৮.২৭ শতাংশ।

সব মিলিয়ে বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হিসেবে ৯ লাখ ৪৪ হাজার ৯১৭ জন শনাক্ত হয়েছেন।

আর এখন পর্যন্ত মৃত্যুর সংখ্যা ১৫ হাজার ৬৫ জন।

কয়েকদিন ধরেই বাংলাদেশে রোগী শনাক্তের হার ২০ শতাংশের উপরে থাকছে।

বর্তমানে বাংলাদেশের ৬৪টি জেলার মধ্যে ৪০টিই সংক্রমণের অতি উচ্চ ঝুঁকিতে রয়েছে বলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর বলছে।

ঈদের পর থেকে ভারতের সীমান্তবর্তী জেলাগুলোতে দ্রুত রোগী বাড়তে থাকে।

বাংলাদেশে এখন সংক্রমণের ৮০ শতাংশই ডেল্টা ভ্যারিয়্যান্ট বলে সরকারের একটি গবেষণায় জানা গেছে।

এমন প্রেক্ষাপটে ১লা জুলাই থেকে এক সপ্তাহের জন্য বাংলাদেশে কঠোর লকডাউন চলছে।

সূত্রঃবিবিসি

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button