রংপুর

ছাড়পত্র ছাড়াই ফ্যাক্টরিতে ওষুধ তৈরি, অভিযানে বিপুল পরিমান ওষুধ জব্দ

তারার আলো অনলাইন ডেস্ক: রেজিস্ট্রেশন, কেমিস্ট, ফায়ার ও পরিবেশের ছাড়পত্র না থাকার পরেও অবৈধভাবে ওষুধ উৎপাদন করায় একটি আয়ুবেদী ফ্যাক্টরিতে অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমান ওষুধ জব্দ করেছে গোয়েন্দা পুলিশ। মঙ্গলবার ২৪ আগষ্ট দুপুরে রংপুর মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগ, ওষুধ প্রশাসন অধিদপ্তর ও জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নগরীর বাহারকাছনা মাস্টারপাড়ায় এলাকায় নিউ মৌভাষা ঢাকা ফার্মাসিউটিক্যাল আয়ুবেদী ফ্যাক্টরিতে অভিযান চালিয়ে ওষুধ প্রস্তুতের কেমিকেল, তৈরি ওষুধ ও বিভিন্ন সরঞ্জামসহ প্রায় সাড়ে ৫ লাখ টাকার মালামাল জব্দ করে তা পুড়িয়ে ফেলে। সেই সাথে প্রতিষ্টানটির মালিককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড প্রদানসহ সাড়ে ৫ লাখ টাকার অবৈধ ওষুধ জব্দ করে পরে তা ধ্বংস করেছে।

অভিযানের সময়, পরিবেশের ছাড়পত্র, ফ্যাক্টরীর নামে কোন রেজিস্ট্রেশন, ফায়ার সার্ভিসের ছাড়পত্র দেখাতে পারে নাই। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট রাহাত বিন কুতুব জানান, ফ্যাক্টরীর নামে কোন রেজিস্ট্রেশন নাই, শ্রমিকদের হাতে হ্যান্ড গ্লোভস ও মাস্ক নেই, নোংরা পরিবেশে ওষুধ প্রস্তুত, ফায়ার সার্ভিসের ছাড়পত্র, অ্যানেক্সার এর বাহিরে ওষুধ উৎপাদন, ওষুধ তৈরির কাঁচামাল সঠিকভাবে সংরক্ষণ না করাসহ বিভিন্ন অভিযোগে ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে প্রতিষ্টানটির মালিককে ১০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ডে আদেশ দেন।

সেই সাথে লাইসেন্স না করা পর্যন্ত ফ্যাক্টরিটির সকল কার্যক্রম ও উৎপাদন বন্ধ রাখার আদেশ দেন। তিনি জানান, ঔষধ প্রশাসনের অনুমোদন ছাড়াই শুষ্ক মৌলাদি তৈল, সুমুদ্র শোষন তৈল,পুনর্ণ বাদী তৈল, সন্ধ্যাবাদী তৈল, ষড়বৃদু তৈল, শুক্র সঞ্জীবন হালুয়াসহ বেশ কিছু পণ্য অুমোদন ছাড়াই বাজারজাত করে আসছিল প্রতিষ্টানটি।

উল্লিখিত, অপরাধের দায়ে রংপুর জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ রাহাতবিন কুতুব ভ্রাম্যমাণ আদালতের মাধ্যমে ওষুধ আইন ১৯৪০ ১৮(ক) ও (গ) এবং ২৭ ধারা মোতাবেক উক্ত প্রতিষ্ঠানের মালিক মোঃ ওয়ালিউল্ল্যাহ (৫৩), হারাগাছ রংপুর মেট্রোপলিটন রংপুর কে ১০ হাজার টাকা জরিমানা এবং অনাদায়ে ৭ দিনের বিনাশ্রম কারাদণ্ড আদেশ দেন এবং লাইসেন্স না করা পর্যন্ত উক্ত ফ্যাক্টরিটির সকল কার্যক্রম ও উৎপাদন বন্ধ রাখারও আদেশ দেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button