রংপুরস্থানীয়

ডিআইজি’র তারাগঞ্জের দুর্গা পূজামন্ডপ পরিদর্শণ ও শরণিকা ‘শারদীয়া’র মোড়ক উম্মোচন

তারার আলো খবর:- হিন্দু সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মধ্যে সবচেয়ে বড় পূজা হচ্ছে শারদীয় দুর্গা পূজা। দুর্গাপূজায় সকল ধর্মের মানুষজন উৎসব করে থাকেন। দেবী দুর্গা আমাদের মাতা। এ জন্য আমরা পুরুষেরা কোন মা-বোনকে কোন প্রকার নির্যাতন করা থেকে বিরত থাকবো।

আপনারা স্বাস্থ্যবিধি মেনে,শৃঙ্খলা বজায় রেখে শান্তিপুর্ণভাবে শারদীয় দুর্গা পূজা পালন করছেন আমি এটাই চেয়েছিলাম। এ পূজা শান্তিপূর্নভাবে পালনের লক্ষ্যে পূজা শুরুর আগেই ৮টি জেলার প্রত্যেকটি থানায় সভা করা হয়েছে। উপজেলা পুজা উদযাপন পরিষদের নেতাকর্মীরা প্রত্যেক পূজা মন্ডপের সভাপতি সম্পাদককে নিয়ে সভা করেছেন। তারই ফলশ্রুতিতে শান্তিপূর্নভাবে পুজা পালন হচ্ছে। তার প্রমান আপনারাই।

গ্রামাঞ্চলের মধ্যে আপনারা যে এতো সুন্দর পরিবেশ সুষ্টি করেছেন দেখে মুগ্ধই হলাম। এভাবেই কথা গুলো বললেন রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি দেবদাস ভট্টাচার্য্য। মঙ্গলবার( ১২ অক্টোবর )সন্ধ্যা সাড়ে ৭টায় তারাগঞ্জ উপজেলার হাড়িয়ারকুঠি ইউনিয়নের মধ্যাপাড়া গ্রামে অনুষ্ঠিত শারদীয় দুর্গা মন্দির ও উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের অর্থায়নে প্রকাশিত শরণিকা ‘শারদীয়া’র মোড়ক উম্মোচন অনুষ্টানে তিনি এসব কথা বলেন।

উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি কুমারেশ রায়ের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন রংপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বি-সাকেল) সিফাত ই রাব্বান, তারাগঞ্জ থানা অফিসার ইনর্চাজ ফারুক আহম্মেদ, উপজেলা পুজা উদযাপন পরিষদের সাধারন সম্পাদক পাপন দত্ত, মধ্যাপাড়া পুজা মন্দিরের সভাপতি হলধর বর্মন প্রমুখ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button