স্থানীয়

রংপুরে আরও ১৬ মৃত্যু, করোনা হাসপাতালে রোগী ভর্তি বন্ধ

তারার আলো ডেস্কঃ রংপুর বিভাগে করোনা সংক্রমণ এবং মৃত্যুর হার আশঙ্কাজনকভাবে বেড়ে গেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় রংপুরের ৮ জেলায় তিন নারীসহ ১৬ জন মারা গেছেন। এছাড়া নতুন করে এক হাজার ২৯৩  জনের নমুনা পরীক্ষায় ৫৫৬ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। এ নিয়ে মাসের শুরুর চার দিনে বিভাগে সাত নারীসহ ৪৮ জন মারা গেছেন। এদিকে হাসপাতালের সব বেড রোগীতে পূর্ণ হওয়ায় রংপুর করোনা ডেডিকেটেড আইসোলেশন হাসপাতালে রোগী ভর্তি বন্ধ রয়েছে। 
রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক ডা. জাকিরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। তিনি জানান, ​গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় দিনাজপুরে চার জন, ঠাকুরগাঁয়ে সাত এবং পঞ্চগড়ে দুই জন মারা গেছেন। এছাড়া লালমনিরহাট-গাইবান্ধা ও কুড়িগ্রামে একজন করে রোগী মারা গেছেন।এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ৫৬৭ জনে।রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতর সূত্রে জানা গেছে বিভাগের আট জেলায় করোনা সংক্রমণ ভয়াবহ আকার ধারণ করেছে। বিশেষ করে দিনাজপুর, রংপুর ও ঠাকুরগাঁওয়ে করোনা রোগীর সংখ্যা আশঙ্কাজনক হারে বাড়ছে।  

এখন পর্যন্ত বিভাগে নমুনা পরীক্ষা হয়েছে এক লাখ ৬১ হাজার ৮৯৪টি। এর মধ্যে ২৮ হাজার ২৪৮ জনের করোনা শনাক্ত হয়েছে। সুস্থ হয়েছেন ২০ হাজার ৬৮৮ জন।

রংপুর বিভাগীয় স্বাস্থ্য অধিদফতরের পরিচালক ডা. জাকিরুল ইসলাম জানান, বিভাগের মধ্যে দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও এবং রংপুরে সংক্রমণ হার আশঙ্কাজনক হারে বেড়েছে। এর মধ্যে দিনাজপুরে ৯ হাজার ৮৭ জন, রংপুরে ৬ হাজার ৪৫২ জন এবং ঠাকুরগাঁওয়ে তিন হাজার ৭৩৫জন শনাক্ত হয়েছেন। সবচেয়ে কম শনাক্ত হয়েছে লালমনিরহাটে, এক হাজার ৬০৪ জন। 

স্বাস্থ্যবিধি না মানা ও সামাজিক দূরত্ব বজায় না রাখায় সংক্রমণ বাড়ছে বলে মনে করেন তিনি। অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, রংপুরে করোনা হাসপাতালে আইসিইউ বেড ১০টির মধ্যে একটিও খালি নেই। সাধারণ বেড ৯১টির মধ্যে সবগুলোতে রোগী ভর্তি আছে। ফলে রবিবার থেকে কোভিড হাসপাতালে করোনা রোগী ভর্তি বন্ধ রয়েছে বলে হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button