নীলফামারী

সৈয়দপুরে আইডিইবি’র কেন্দ্রীয় নির্বাহী
কমিটি নির্বাচনের ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত

স্টাফ রিপোর্টার, সৈয়দপুর (নীলফামারী) :
সারাদেশের মতো বৃহস্পতিবার (২৯ ডিসেম্বর) নীলফামারীর সৈয়দপুরেও ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনীয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি) এর কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির ২০২৩-২০২৫ইং মেয়াদের নির্বাচনের ভোট গ্রহন সম্পন্ন হয়েছে। শহরের সাহেবপাড়া বাংলাদেশ রেলওয়ে ডিপ্লোমা প্রকৌশলী সমিতি সৈয়দপুর শাখার কার্যালয়ে ওই ভোট গ্রহন করা হয়।

নির্বাচন সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনীয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি) এর কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির ২০২৩-২০২৫ইং মেয়াদের নির্বাচনে সংগঠনের ৩৭টি পদে দুইটি প্যানেলে প্রার্থীরা প্রতিদ্ব›িদ্বতা করেন। সকাল আটটা থেকে বিকেল চারটা পর্যন্ত একটানা ভোট গ্রহন করা হয়। সৈয়দপুর কেন্দ্রে মোট ভোটার সংখ্যা ছিল ১০২ জন। এদের মধ্যে ৭৫জন ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেছেন।

বৃহস্পতিবার বিকাল তিনটায় ভোট গ্রহন চলাকালে ভোট কেন্দ্রে সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় সৈয়দপুর শহরের সাহেবপাড়া বাংলাদেশ রেলওয়ে ডিপ্লোমা প্রকৌশলী সমিতি’র সৈয়দপুর শাখার কার্যালয়ের ভেতরে ব্যালট পেপারে ভোট দেয়ার জন্য পৃথক পৃথক দুইটি বুথ তৈরি করা হয়েছে।

একই কক্ষের বুথের পার্শ্বে রাখা হয়েছে স্বচ্ছ একটি ব্যালট বাক্স। আইডিইবি’র সদস্য ভোটাররা পর্যায়ক্রমে সেখানে এসে তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করছেন। বিকেলে তিনটা পর্যন্ত ৬৭ জন সদস্য ভোটার তাদের ভোটাধিকার প্রয়োগ করেন।

এ নির্বাচনে রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্ব পালন করেন ডিপ্লোমা প্রকৌশলী মো. সাদেক হাসান চৌধুরী। আর সহকারী রিটার্নিং অফিসারের দায়িত্বে ছিলেন মো. নিজামুল হক ও মো. আজিজুল ইসলাম। আর ইনস্টিটিউশন অব ডিপ্লোমা ইঞ্জিনীয়ার্স, বাংলাদেশ (আইডিইবি) এর সৈয়দপুর সাংগঠনিক জেলা শাখার সভাপতি মো. মোনায়মুল হক,

সহ-সভাপতি মো. শহিদুল ইসলাম, সাধারণ সম্পাদক মো. মোমিনুল ইসলাম, বাংলাদেশ রেলওয়ে ডিপ্লোমা প্রকৌশলী সমিতি সৈয়দপুর শাখার সাধারণ সম্পাদক মো. মোশারফ হোসেনসহ অন্যান্যরা ভোট কেন্দ্রে অবস্থান করে সার্বিক কার্যক্রম দেখভাল করছিলেন। এছাড়াও ডিপ্লোমা প্রকৌশলী মো. তহিদুল ইসলাম নির্বাচনে পর্যবেক্ষকের দায়িত্ব পালন করেন।

এ সময় কথা হয় নির্বাচনের প্রিসাইডিং অফিসার ডিপ্লোমা প্রকৌশলী মো. সাদেক হাসান চৌধুরীর সঙ্গে। তিনি জানান, সকাল থেকে ভোটাররা স্বর্তঃস্ফূর্তভাবে এসে ভোট প্রদান করেন। অত্যন্ত সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণভাবে ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button