রংপুরস্থানীয়

হাড়িয়ারকুঠিতে অগ্নিকান্ডে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের মাঝে মামুনের শাড়ি লুঙ্গি ও নগদ অর্থ বিতরণ

তারার আলো খবর: তারাগঞ্জ উপজেলার হাড়িয়ারকুঠি ইউনিয়নের কবলাপাড়া গ্রামে আগুনে পুড়িয়ে যাওয়া ক্ষতিগ্রস্ত ৮টি পরিবারের প্রত্যেকের মাঝে শাড়ী, লুঙ্গি ও নগদ অর্থ বিতরন করলেন কাশিয়াবাড়ি স্কুল এন্ড কলেজের প্রিন্সিপাল মামুনুর রশীদ মামুন।

মঙ্গলবার (২১ আগষ্ট) দুপুরে ওই ক্ষতিগ্রস্তদের মাঝে তিনি এভাবে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে পরিবারের লোকজনকে শান্তনা দেন। মামুনুর রশীদ মামুন হাড়িয়ারকুঠির সাবেক ইউপি নির্বাচনে দুই দুইবারের প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ছিলেন। শিক্ষা সেবার পাশাপাশি সাধারন মানুশের পাশে থাকার প্রত্যাশায় এবারেও তিনি ওই হাড়িয়ারকুঠি ইউনিয়নের সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে মাঠে গন সংযোগ অব্যাহত রেখেছেন।

উল্লেখ্য, গত সোমবার রাত প্রায় সাড়ে ১১টায় কবলাপাড়া গ্রামের নজির হোসেনের চতুর্থ পুত্র ও একাদশ শ্রেনীতে পড়ুয়া ছাত্র এনামুল হকের শোয়ার ঘর থেকে আগুনের সুত্রপাত ঘটিয়ে নিমিষেই নজিরের তিনটি ঘর, নজিরের ভাই আনারুল হকের দুইটি ঘর, ভাতিজা সাইবুল হকের একটি ঘর, ছেলে নাজমুল হকের একটি ঘর ও আজিজুল হকের একটি ঘরসহ ৫টি পরিবারের মালামাল পুড়ে ছাই হয়েছে। এছাড়াও আগুনে পুড়ে আবু বক্কর, ইয়াছিন আলী ও লাভলু নামে আরো ৩টি পরিবার আংশিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছেন। এতে করে একটি পরিবারের নগদ ৬০ হাজার টাকাসহ আগুনে পুড়ে ওই ৮টি পরিবারের প্রায় ১০ লাখ টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবার সুত্রে জানা গেছে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published.

Back to top button